বাড়িতেই তৈরি করুন সুস্বাদু মিল্ক পুডিং

বাড়িতেই তৈরি করুন সুস্বাদু মিল্ক পুডিং

মিল্ক পুডিং রেসিপি (Milk pudding recipe)

মিল্ক/দুধ পুডিং, অনেকভাবে বানানো যায় । একেক পুডিং এর এক এক ধরনের স্বাদ রয়েছে। উপকরণ অনুযায়ী এর স্বাদ ও এক এক রকম হয়ে থাকে। বাচ্চা থেকে শুরু করে বয়স্ক প্রায় সবারই পছন্দের খাবারের তালিকায় আছে এই পুডিং। তাই বাসায় যেকোনো সময় যেমন ইচ্ছা পুডিং বানিয়ে নিতে পারেন অল্প সময়েই। মিল্ক পুডিং দুধের তৈরী তাই এর পুষ্টিগুণ ও অনেক বেশি। আসুন দেখে নেওয়া যাক খুব সহজে কিভাবে মিল্ক পুডিং বানিয়ে নিতে পারেন।

মিল্ক পুডিং রেসিপি এর উপকরণ –

– লিকুইড মিল্ক ১.৫ কেজি ।
– ডিম ১ টা।
– আর চিনি আধা কাপ।

কেরামেল বানানোর উপকরণ –

– চিনি ২ চা চামচ।
– পানি ১ চা চামচ ।
– আর ঘি আধা চা চামচ ।

মিল্ক পুডিং প্রস্তুত প্ৰণালী (How to prepare milk pudding):

– প্রথমেই দুধ জ্বাল দিয়ে তা ঘন করে নিতে হবে। দুধ জ্বাল দেবার সময় নাড়তে থাকুন, না হলে নিচে পোড়া লেগে যাবে।
– দুধ ঘন করে প্রায় ৬০০ – ৭০০ মিলি লিটার দুধ রাখতে হবে । দুধ চুলা থেকে নামিয়ে ঠাণ্ডা করে নিতে হবে।
– এরপর একটি পাত্রে ডিম ভেঙ্গে নিয়ে চামচ দিয়ে ফেটিয়ে নিন। এবার ডিমের সাথে দুধ মিক্স করে নিতে হবে আর সাথে চিনিও দিয়ে নিন। এবার ভালোভাবে এটি নেড়ে দুধ, ডিম চিনি মিক্স করে নিন।
– এবার একটি টিফিন বক্স নিয়ে এতে পরিমান মত চিনি, ঘি ও পানি এক সাথে দিয়ে দিন। এবার টিফিন বক্সটি চুলায় বসিয়ে ভালমত জ্বাল দিন। ক্যারামেল তৈরী হলে টিফিন বক্সটি নামিয়ে ভালোমত ঠাণ্ডা করে নিন ।
– এবার দুধ ও ডিমের মিশ্রণটি একটি টিফিন বাটিতে ঢেলে নিন। । এরপর একটি বড় পাত্রে পানি দিয়ে স্ট্যান্ড বসিয়ে তার উপর টিফিন বক্সটি দিয়ে দিন। টিফিন বক্সটি ভালোভাবে ঢাকনা লাগিয়ে নিবেন, নয়তো বা পানি ঢুকে যেতে পারে। টিফিন বাটির উপরে কিছু দিয়ে চাপ দিন, এতে বাতাস বাহিরে যেতে না পারে ।
– তারপর ৩০-৩৫ মিনিট হলে একটি কাঠি দিয়ে চেক করে নিবেন পুডিং হয়েছে কিনা। হলে নামিয়ে ঠাণ্ডা করে নিন। ঠাণ্ডা হলে একটি ছড়ানো প্লেটে উলটো করে পুডিংটি ঢেলে নিতে হবে।
– এবার ২-৩ ঘণ্টা ফ্রিজে রেখে দিন ঠান্ডা হওয়ার জন্য।

ব্যাস তৈরি হয়ে গেল সহজ মজাদার ডিম পুডিং রেসিপি বাংলা (Egg Pudding Recipe in Bangla Language)। ফ্রিজ থেকে বের করে ঠাণ্ডা ঠাণ্ডা পরিবেশন করুন পুডিং।

Leave a reply