ডাবের পানি : কখন খেলে বেশি উপকার পাবেন?

ডাবের পানি এক অলৌকিক পানীয় যার মধ্যে রয়েছে লো ক্যালোরি, প্রাকুতিক এনজাই সহ বিভিন্ন খনিজ উপাদান৷  শরিরের তাপ প্রবাহের সাথে যুদ্ধ করে আদ্রতার মাত্রাকে ঠিক রেখে, শরিরকে ঠান্ডা রাখতে ডাবের পানির বেশ কার্যকর৷  পটাশিয়াম ম্যাঙ্গানিজ, ফাইবার, ভিটামিন সি এর মত অনেক গুলো পুস্টিকর উপাদান রয়েছে এই পানিতে৷  

ডাবের পানি পান করার উপকারিতা কি? 

১. ডাবের পানিতে প্রচুর পরিমানে পটশিয়াম রয়েছে।  আর এই পটাশিয়াম আমাদের পেটের খাবারকে দ্রুত হজম করতে সাহায্য করে৷  

২. যদিও ক্যালরি ও কার্বহাইড্রেট অনেক কম থাকে ডাবের পানিতে,  তবুও ডাবের পানি পান করলে, পেট অনেক্ষন ভরা থাকে৷  

৩. অনেক সময় গর্ভবতী মায়েদের ডাক্তার ডাবের পানি খাবার পরামর্শ দেয়,  কারন এটা ঐ সময়কার ডিহাইড্রেশন এবং কোষ্ঠকাঠিন্য দুর করতে অনেক উপকারি৷  

৪. শরিরের মেটাবলিজমের মাত্র বাড়াতে সাহয্য করে ডাবের পানি,  যা পরবর্তিতে শরিরে সহজে মেদ জমতে দেয় না,  ওজনও কমে যায় দ্রুত।  

৫. ল্যারিক এ্যাসিড থাকায় ডাবের পানি পান করলে, শরিরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি পায়।  

কোন সময় ডাবের পানি পান করার কি উপকার : 

ডাবের পানি পান করা কোন নিদিষ্ট সময় নেই, সারাদিনের যে কোন সময়ই তাজা ডাবের পানি পান করলে যে কেও ভালো বোধ করবে৷ তবে, কিছু নিদিষ্ট সময়ে এই পানি পান করলে বেশি ভালো উপকার পাওয়া সম্ভব৷  আসুন, ডাবের পানি পান করার কিছু ভালো সময়ের কথা জেনে নেই।  

  • সকালে খালি পেটে : প্রতিদিন সকালে নিয়ম করে এক গ্লাস করে ডাবের পানি পান করার উপকারিতা অনেক৷  ডাবের পানিতে প্রচুর প্ররিমানে লেরিক এসিড এর উপস্থিতি থাকায়,  সকালে এটা পান করলে এটা শরিরের ওজন কমাতে সাহায্য করে৷  
  • কাজের আগে ও পরে : কাজের আগে অথবা পরে শরিরে শক্তি যোগাতে,  এবং শরিরের পানিশুন্যতা পূরন করতে ডাবের পানি অনেক কার্যকর। এটা পান করলে শরির তার হারানো ইলেক্ট্রলাইট ফিরে পায়৷  
  • খাওয়ার আগে ও পরে :  যারা ওজন কমাতে ইচ্ছুক,  তারা খাবার আগে এক গ্লাস ডাবের পানি পান করতে পারে৷ কারন এতে করে অল্পতেই পেট ভরে যাবে এবং অতিরিক্ত আহার প্রতিরোধ করা যাবে৷  এর ফলে শরিরের ওজনও কমতে শুরু করবে৷ তাছাড়া ডাবের পানিতে কম ক্যালরি থাকায় এটি আমাদের পাকস্থলির জন্য অনেক সহনীয়।  
  • ঘুমানোর আগে: ডাবের পানি নিয়মিত পান করলে,  হতাশা দুর হয় এবং এটা হার্টের হ্রদস্পন্দনকে ধীর রাখে৷ ঘুমানোর আগে ডাবের পানি পান করলে,  এটা শরির থেকে ক্ষতিকর বজ্র বের করে,  বিভিন্ন কিনডি জনিত সমস্যা দুর করতে সাহায্য করে৷  
  • অ্যালকোহল পানের পর:  অনেক সময় অ্যালকোহল জাতীয় দ্রব্য/ পানিয় পান করার ফলে শরিরের পানিশুন্যতা দেখা দেয় – যার ফলে অ্যালকোহল পানের পরের দিন সকালে মাথা ব্যাথা হয়ে থাকে।  এই সময় ডাবের পানি পান করলে,  তা এই সময়কার মাথা ব্যাথা কমাতে সাহয্য করে৷ 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *